‘সরকার ঘুষ দিয়ে ক্ষমতায় টিকে আছে’

বর্তমান সরকার ‘ঘুষ’ দিয়ে ক্ষমতায় টিকে আছে মন্তব্য করেছেণে গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা ট্রাস্টি ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী।তিনি বলেছেন, শুধু ঘুষ দিয়ে ক্ষমতায় টিকে থাকা যায় না। জনতার জাগরণ সৃষ্টি হলে সকল স্বৈরশাসকের পতন অনিবার্য। বর্তমান সরকার যত চেষ্টাই করুক না কেন তাদের অবৈধ ক্ষমতা চিরস্থায়ী করতে পারবে না।

আওয়ামী লীগের চরম ব্যর্থতার কারণে আজকে দেশের মানুষ মুক্তি চায়।রোববার তোপখানাস্থ শিশুকল্যাণ মিলনায়তনে বিশিষ্ট কমিউনিস্ট নেতা কমরেড আলাউদ্দিন আহমেদের ১৫তম মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে এক আলোচনা সভায় তিনি এ কথা বলেন।

‘জনগণের মুক্তি : চলমান সংকট ও আলাউদ্দিন আহমেদ’ শীর্ষক আলোচনা সভার আয়োজন করে স্বপন স্মৃতি পরিষদ।ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী বলেন, প্রতিমূহুর্ত মুক্তিযুদ্ধের চেতনার কথা বলে মুখে ফেনা তুললেও মুক্তিযুদ্ধে চেতনা বাস্তবায়নে সরকার ব্যর্থ। সরকার ৩০ লক্ষ শহীদের তালিকা করতে পারে নাই, রাজাকারের তালিকা করতে পারে নাই, এমনকি মুক্তিযুদ্ধাদেরও একটি সঠিক তালিকা তারা প্রণয়ন করতে পারে নাই।

পারে নাই সুশাসন প্রতিষ্ঠা করতে।২০ দলীয় জোট নেতাদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, বেগম জিয়ার জেলের সাথে নির্বাচনের সম্পর্ক নাই। বেগম জিয়াকে মুক্তি না দিলেও বিএনপি ও ২০ দলের নির্বাচনে অংশগ্রহণের ঘোষণা দেয়া উচিত।

মনে রাখতে হবে হবে সরকার ভিতর থেকে দুর্বল হয়ে পড়েছে। জনতার জাগরণ সৃষ্টি হলে অসমতল সমতল হয়ে যাবে। জনজোয়ারে কোনো ষড়যন্ত্র টিকে থাকে না।ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী বলেন, আওয়ামী লীগ ও ভারতীয় ‘র’, বিএনপি ও ২০ দল যাতে নির্বাচনে না আসে সেই পথই সৃষ্টি করছে। সুতরাং আওয়ামী লীগের ছলনায় ধরা দেয়া যাবে না। আওয়ামী লীগ বা ‘র’ এর তৈরি পথে হাটলে সমূহ বিপদের সম্ভাবনা রয়েছে।তিনি বলেন, কমরেড আলাউদ্দিন ছিলেন মাটি মানুষের নেতা। মওলানা ভাসানীর নেতৃত্বে তিনি গণমানুষের মুক্তির জন্য আজীবন লড়াই করে গেছেন। আমাদের স্বার্থে, আগামী প্রজন্মের স্বার্থেই মওলানা ভাসানী-অলি আহাদ-ভাষা মতিন-কমরেড আলাউদ্দিনদের স্মরণ করতে হবে।ভাষা মতিনের স্ত্রী মনিকা মতিন বলেন, বৈষম্যহীণ রাষ্ট্র প্রতিষ্ঠায় কমরেড আলাউদ্দিন সংগ্রম করেছেন।

তার সেই সংগ্রামের পথ ধরেই আমাদের এগিয়ে যেতে হবে।সংগঠনের আহ্বায়ক রফিকুল ইসলামের সভাপতিত্বে ও সদস্য সচিব মো. শহীদুননবী ডাবলু’র সঞ্চালানায় আলোচনায় অংশগ্রহণ করেন পিডিবি মহাসচিব এহসানুল হক সেলিম, বাংলাদেশ ন্যাপ মহাসচিব এম গোলাম মোস্তফা ভূঁইয়া, কমরেড আলাউদ্দিনের জ্যেষ্ঠ কন্যা কবি আফরোজা অদিতি, লেবার পার্টি মহাসচিব হামদুল্লাহ আল মেহেদী, নাজিরপুর উপজেলা চেয়ারম্যান নজরুল ইসলাম খান, কল্যাণ পার্টি ভাইস চেয়ারম্যান সাহিদুর রহমান তামান্না, ন্যাপ সাংগঠনিক সম্পাদক মো. কামাল ভূঁইয়া, দেশ বাঁচাও মানুষ বাঁচাও আন্দোলনের সভাপতি কে এম রকিবুল ইসলাম রিপন, সাবেক ছাত্রনেতা এম এন শাওন সাদেকী, ছাত্রনেতা কামরুল ইসলাম সুরুজ প্রমুখ।

poriborton

Check Also

bnp-flag

নতুন সংকটে বিএনপি

দীর্ঘদিন ক্ষমতায় বাইরে থাকার ফলে দলীয় কোন্দল ও উপনির্বাচন-স্থানীয় সরকার নির্বাচনে ভরাড়ুবি এবং সাংগঠনিক দুর্বলতাসহ …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

Share
Pin