bnp_jot

স্থায়ী কমিটির বৈঠকে বিএনপির প্রার্থী চূড়ান্ত হয়নি, মনোনয়ন ফরম বিক্রি আজ

স্থায়ী কমিটির বৈঠকে ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের মেয়র পদে উপনির্বাচনে প্রার্থী চূড়ান্ত করতে পারেনি বিএনপি। প্রার্থী চূড়ান্ত করতে ফের বৈঠকে বসবে বিএনপির এই নীতি নির্ধারণী কমিটি।

বিএনপির চেয়ারপারসনের গুলশানের কার্যালয়ে শনিবার রাতে দলটির জাতীয় স্থায়ী কমিটির বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। বৈঠকে প্রার্থী চূড়ান্ত করার কথা থাকলেও তা পারেনি।

তবে মনোনয়ন ফরম বিক্রি করার পর প্রার্থী ঠিক করার সিদ্ধান্ত হয়েছে ওই বৈঠকে। রবিবার মনোনয়ন ফরম বিক্রি করবে দলটি। এরপর প্রার্থী চূড়ান্ত করতে ফের বৈঠকে বসবে বিএনপির সর্বোচ্চ নীতি নির্ধারণী কমিটি।

বিএনপি চেয়ারপারসনের গুলশানের কার্যালয়ে শনিবার রাত পৌনে ১০টা থেকে প্রায় দুই ঘন্টাব্যাপী স্থায়ী কমিটির বৈঠকের পর গণমাধ্যমে সংবাদ বিজ্ঞপ্তি পাঠানো হয়।

দলটির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী স্বাক্ষরিত ওই বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের মেয়র পদে উপনির্বাচনে বিএনপির মনোনয়নপ্রত্যাশীদের রবিবার বিকেল চারটার মধ্যে দলটির নয়াপল্টনের কেন্দ্রীয় কার্যালয় থেকে ১০ হাজার টাকা জমা দিয়ে আবেদন ফরম সংগ্রহ করতে হবে।

ফরম যথাযথভাবে পূরণ করে পরের দিন সোমবার বিকেল চারটার মধ্যে ২৫ হাজার টাকা জামানতসহ জমা দিতে হবে। একই দিন রাত সাড়ে আটটায় বিএনপির চেয়ারপারসনের গুলশানের কার্যালয়ে দলীয় মনোনয়ন বোর্ডে মনোনয়নপ্রত্যাশী প্রার্থীদের সাক্ষাৎকার অনুষ্ঠিত হবে।

স্থানীয় সরকার নির্বাচনের ক্ষেত্রে বিএনপি সাধারণত প্রার্থী আগে চূড়ান্ত করে, পরে বাকি প্রক্রিয়া সম্পন্ন করে। কিন্তু এবার তার ব্যতিক্রম ঘটল।

দলীয় সূত্রে জানা গেছে, এবার ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের মেয়র পদে উপনির্বাচনে বিএনপির মনোনয়নপ্রত্যাশীদের সংখ্যা বেশি হওয়ায় এবং জোটের সঙ্গে দর কষাকষিতে কিছুটা বিলম্বে প্রক্রিয়া মেইনটেইন করেই প্রার্থী চূড়ান্ত করতে হচ্ছে।

প্রসঙ্গত, আগামী ২৬ ফেব্রুয়ারি ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন উপনির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। মনোনয়নপত্র জমা দেওয়া যাবে ১৮ জানুয়ারি পর্যন্ত। মনোনয়ন যাচাই-বাছাই হবে ২১ ও ২২ জানুয়ারি। প্রার্থিতা প্রত্যাহারের শেষ তারিখ ২৯ জানুয়ারি।

হাসিনা-খালেদা যেভাবে অংশ নিচ্ছেন আখেরি মোনাজাতে

বিশ্ব ইজতেমার প্রথম পর্বের আখেরি মোনাজাতে অংশ নিতে টঙ্গী অভিমুখে লাখো মুসল্লির ঢল নেমেছে। বেলা ১১টা থেকে ১২টার মধ্যে তুরাগ তীরে এই মোনাজাত হবে। বিশ্ব ইজতেমার প্রথম পর্বের আখেরি মোনাজাতে রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ বয়ান মঞ্চে বসে মোনাজাতে অংশ নেওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে বলে জানা গেছে সংশ্লিষ্ট সূত্র থেকে।

অন্যদিকে মুসল্লিদের ভোগান্তির ও নিরাপত্তার স্বার্থে টঙ্গীর বাটা সু’ ফাক্টরির ছাদে বসে আখেরি মোনাজাতে অংশগ্রহণের পরিবর্তে ঢাকায় অবস্থান নিয়ে বিশেষ ব্যবস্থায় এবারও ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে মোনাজাতে অংশ নিবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। প্রধানমন্ত্রী কার্যালয়ের একটি সূত্র এই তথ্য জানিয়েছেন।

একইভাবে বিএনপির চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়া হোন্ডা (এটলাস) কারখানার ছাদে বসে অংশ নেয়ার পরিবর্তে ঢাকায় বাসায় অবস্থান নিয়ে বিশেষ ব্যবস্থায় মোনাজাতে অংশ নিতে পারেন বলে জানা গেছে।

তবে প্রতিবারের মতো এবারো দোয়া মঞ্চের পাশে সাবেক রাষ্ট্রপতি হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ আখেরি মোনাজাতে অংশ নেয়ার কথা রয়েছে বলে জানিয়েছেন গাজীপুরের পুলিশ সুপার হারুন অর রশীদ।

এছাড়াও মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক ও স্থানীয় সংসদ সদস্য জাহিদ আহসান রাসেল গাজীপুর মহানগর আওয়ামীলীগের সভাপতি অ্যাডভোকেট আজমত উল্লাহ খানসহ মন্ত্রিপরিষদের একাধিক সদস্য, বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের নেতৃবৃন্দ, বিভিন্ন সরকারী-বেসরকারীসহ বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান ও বিভাগের কর্মকর্তাগণ জেলা প্রশাসনের কন্ট্রোলরুমসহ ময়দানের বিভিন্ন স্থানে উপস্থিত হয়ে মোনাজাতে অংশ নেবেন।

প্রসঙ্গত, আয়োজকদের একাংশের প্রতিবাদের মুখে ইজতেমায় যোগ না দিয়ে শনিবার দুপুরে ঢাকা ছেড়েছেন দিল্লির মাওলানা মোহাম্মদ সাদ কান্ধলভি। ফলে বাংলায় আখেরি মোনাজাত পরিচালনা করবেন কাকরাইল মসজিদের ইমাম মাওলানা মোহাম্মদ জোবায়ের।

rtnn

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.