kader_photo

খালেদাকে পাল্টা উকিল নোটিশ দেবে আ.লীগ

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার পাঠানো আইনি নোটিশের জবাবে পাল্টা উকিল নোটিশ পাঠানো হবে।

আজ শুক্রবার কমলাপুরে ঢাকা দক্ষিণ আওয়ামী লীগের শীতবস্ত্র বিতরণ অনুষ্ঠানে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে ওবায়দুল কাদের এ কথা বলেন।

ওবায়দুল কাদের বলেন, ভুয়া ও মিথ্যা উকিল নোটিশ পাঠানোর জন্য তাদেরও উকিল নোটিশ দেওয়া হচ্ছে। অপেক্ষা করুন। তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী জিয়া পরিবারের যে দুর্নীতির খবর তুলে ধরেছেন, তা দেশি-বিদেশি গণমাধ্যমের তথ্যের ভিত্তিতে। এই তথ্যগুলো গণমাধ্যম দিয়েছে। এটা প্রমাণিত।

সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেন, বিএনপির দুর্নীতির কেচ্ছা রূপকথার কাহিনিকেও হার মানাবে। প্রধানমন্ত্রীর সৎ সাহস আছে বলে তিনি সত্যকে তুলে ধরেছেন। এতে বিএনপি নেতাদের অন্তর্জ্বালা শুরু হয়ে গেছে।

পদ্মাসেতুর অবকাঠামো নির্মাণের বিষয়ে বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর অভিযোগ প্রমাণ করতে না পারলে তাঁকে মামলার মুখোমুখি হতে হবে বলেও জানিয়েছেন ওবায়দুল কাদের।

গতকাল বৃহস্পতিবার এক সংবাদ সম্মেলনে মির্জা ফখরুল বলেন, ‘ভুল’ নকশায় পদ্মাসেতু নির্মাণ করা হচ্ছে। এই মন্তব্যের পরিপ্রেক্ষিতে আজ সেতুমন্ত্রী কাদের বলেন, ‘এখন ফখরুল সাহেব বলছেন পদ্মাসেতুর ডিজাইনে ভুল আছে। ডিজাইনে ভুল আছে প্রমাণ করতে আসুন, তথ্য উপাত্ত নিয়ে আসুন। প্রমাণ না দেখাতে পারলে, আপনাকেও মামলার মুখোমুখি হতে হবে।’

ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন উপনির্বাচনে নিবন্ধিত দল ছাড়া অন্য কেউ অংশ নিতে পারবে কি না-এ প্রশ্নের জবাবে ওবায়দুল কাদের বলেন, এ প্রশ্নের জবাব দেবে নির্বাচন কমিশন। তা আমি দিতে পারি না। আমি যতটুকু জানি, এখানে নিবন্ধিত কোনো দল ছাড়া অন্য কেউ অংশগ্রহণ করার কথা নয়।

পঞ্চগড় ও ঠাকুরগাঁওয়ে আওয়ামী লীগ নগদ ৩২ লাখ টাকা ও ৩৭ হাজার কম্বল বিতরণ করেছে উল্লেখ করে ওবায়দুল কাদের বলেন, আমাদের রাজনীতি নিষ্ঠুর হয়ে গেছে। এটা শুধু প্রতিপক্ষকে ঘায়েল করার জন্য। রাজনীতি শুধু প্রতিপক্ষকে বিষোদ্‌গার নয়। মানুষের দুঃখ-কষ্টের এ অবস্থায়ও আমরা আওয়ামী লীগ ছাড়া কোনো রাজনৈতিক দলকে শীতার্ত মানুষের পাশে দাঁড়াতে দেখিনি।

মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সভাপতি আবুল হাসনাতের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন সাধারণ সম্পাদক শাহে আলম মুরাদ।

ছাত্রলীগের দুই গ্রুপের সংঘর্ষ, পাবনা মেডিকেল বন্ধ

আধিপত্য বিস্তার নিয়ে বিরোধের জের ধরে পাবনা মেডিকেল কলেজে ছাত্রলীগের দুই পক্ষের মধ্যে পাল্টাপাল্টি ধাওয়া ও সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। এতে উভয় পক্ষের অন্তত ১০ জন আহত হয়েছেন। আজ শুক্রবার সকালে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।

পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে কর্তৃপক্ষ অনির্দিষ্টকালের জন্য কলেজ বন্ধ ঘোষণা করেছে। শিক্ষার্থীদের হল ত্যাগের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। ঘটনা তদন্তে তিন সদস্যর তদন্ত কমিটিও গঠন করা হয়েছে।

প্রত্যক্ষদর্শীদের কয়েজন ও শিক্ষার্থীদের সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, কলেজ ছাত্রলীগের একটি পক্ষ মেডিসিন ক্লাব এবং অপর পক্ষ সন্ধানী সমর্থন করে। দীর্ঘদিন ধরে দুই পক্ষ পৃথকভাবে কর্মসূচিও পালন করে আসছে। গতকাল বৃহস্পতিবার রাতে সাকিব হোসেন নামে সন্ধানীর এক সমর্থক ফেসবুকে মেডিসিন ক্লাব নিয়ে আপত্তিকর কিছু লিখেছে এমন খবর হলে ছড়িয়ে পড়ে।

এতে মেডিসিন ক্লাবের সমর্থকেরা ক্ষিপ্ত হন। তাঁরা দল বেঁধে ওই ছাত্রের কক্ষে ঢুকে মারপিট করেন। পরে সন্ধানীর সমর্থকেরাও একত্র হয়ে প্রতিপক্ষর ওপর চড়াও হন। একপর্যায়ে ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক অদ্বিতীয় দে ও সভাপতি মাহফুজুর রহমান নয়ন দুজন পৃথক হয়ে দুই পক্ষকে সমর্থন দেন।

এতে বিবাদ আরও চরম আকার ধারণ করে। ভোর ৫ টার দিকে লাঠিসোঁটা নিয়ে একপক্ষ ওপর পক্ষের ওপর হামলা করে। এতে ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া সংঘর্ষে দুই পক্ষের অনন্ত ১০ জন আহত হন। খবর পেয়ে পাবনা সদর থানা-পুলিশের একটি দল ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে পাবনা মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষ মো. রিয়াজুল হক বলেন, তুচ্ছ বিষয়কে কেন্দ্র করে ছাত্ররা বিবাদে জড়িয়েছে। পরিস্থিতি এখন স্বাভাবিক আছে। অপ্রীতিকর ঘটনা এড়াতে অনির্দিষ্টকালের জন্য কলেজ বন্ধ করে শিক্ষার্থীদের হল ত্যাগের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। ঘটনা তদন্তে তিন সদস্যর তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে। কমিটি প্রতিবেদন দিলে পরবর্তী ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

prothom-alo

Check Also

নির্বাচন পর্যন্ত মাঠে থাকবে বিএনপি : জাহাঙ্গীর

ঢাকা-১৮ আসনে উপনির্বাচনে বিএনপির মনোনীত প্রার্থী এসএম জাহাঙ্গীর হোসেন বলেছেন, আওয়ামী লীগের রক্তচক্ষু উপেক্ষা করে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

Share
Pin