bnp-flag

রসিক নিয়ে বিএনপির দু’ রকম বক্তব্য

রংপুর সিটি করপোরেশন নির্বাচন নিয়ে বিএনপির দুই নেতার দুই রকম বক্তব্য দলের চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া ও সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমানের কারণে বলে দাবি করেছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের।

শুক্রবার সন্ধ্যায় কাকরাইলের ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ার্স ইন্সটিটিউশনের অডিটরিয়ামের সামনে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে এ কথা বলেন তিনি।

ওবায়দুল কাদের বলেন, এটা ফখরুল সাহেব ও রিজভীকে জিজ্ঞেস করেন। আসলে বাজারে গুঞ্জন আছে তাদের মধ্যে একজন তারেকের লোক, আরেকজন বেগম জিয়ার লোক। তাহলে কি তাদের দু’জনের মধ্যে কোন পার্থক্য আছে মূল্যায়নের? তাহলে রিজভী এক কথা, ফখরুল এক কথা বলবেন কেন? এক দলের দুই কথা কি করে হয়।

তিনি বলেন, ‘তো সেলফ কন্ট্রাডিকশন হয়েছে। আসলে কথা এটা না, আসল বিষয়টা হচ্ছে নির্বাচনে বিএনপি জিতলে সুষ্ঠু নির্বাচন, আর না জিতলে সূক্ষ্ম কারচুপি। নারায়ণগঞ্জের মত রংপুরেও নির্বাচন ফেয়ার হয়নি একজন লোকও এমন কথা বলতে পারেনি। কোন পর্যবেক্ষক, কোন সমালোচক কোন প্রকার বিরুপ সমালোচনা এই পর্যন্ত করতে পারেনি।

সুষ্ঠু নির্বাচন সম্পন্ন করার কারণে নির্বাচন কমিশনকে ধন্যবাদ জানাতে না পারাটাও বিএনপির সেলফ কন্ট্রাডিকশনের কারণ বলে মনে করেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক। তিনি বলেন, একটা সুষ্ঠু নিরপেক্ষ নির্বাচন করতে সক্ষম হয়েছে নির্বাচন কমিশন। নির্বাচন কমিশনকে সবাই ধন্যবাদ জানিয়েছে। বিএনপি নির্বাচন কমিশনকে ধন্যবাদ জানাতে পারেনি। আজকে ফখরুল সাহেব বলেছেন নির্বাচন সুষ্ঠু হয়েছে, আবার বলছেন কমিশন ব্যর্থ । তাহলে এটাও সেলফ কন্ট্রাডিক্টরি (পরস্পরবিরোধী)।

জাতীয় নির্বাচনের জন্য এই নির্বাচনের মাধ্যমে কোন টোপ ফেলা হল কিনা জানতে চাইলে কাদের বলেন, আমি টোপ ফেলা বলব না। জাতীয় নির্বাচনে বিএনপি নিজেদের সম্পর্কে আত্মতুষ্টিতে ভূগছে। তারা কাউকে ২৫ সিট দিচ্ছে, আমাদের কখনও ৩০ সিট কখনও ৪০ সিট দিচ্ছে। এই যে একটা অহম এই অহমটা মনে হয় এখন ভাঙবে এবং জাতীয় নির্বাচনে এটা একটা তাদের জন্য বার্তা।

রংপুর সিটি নির্বাচনে আওয়ামী লীগের রাজনৈতিকভাবে কীভাবে বিজয় হয়েছে এর ব্যখ্যা জানতে চাইলে ওবায়দুল কাদের বলেন, এত ভালো একটা নির্বাচন হয়েছে, তারা বলেছে সরকার হস্তক্ষেপ করবে, সরকার কোন প্রকার হস্কক্ষেপ করেনি।

এটা কি আমাদের রাজনৈতিক বিজয় নয়? নির্বাচনের দুদিন আগে প্রধানমন্ত্রী প্রশাসনকে জানাতে বলেছেন যে, ফ্রি এ্যান্ড ফেয়ার নির্বাচন আমরা জাতিকে উপহার দিতে চাই। তিনি বলেন, শেখ হাসিনা সরকার সুষ্ঠু, সুন্দর, অবাধ ও নিরপেক্ষ নির্বাচন অনুষ্ঠানে নির্বাচন কমিশনকে সব রকমের সহযোগিতা করেছে। এখানে হস্তক্ষেপের কোন অভিযোগ নেই। অভিযোগের কোন কারণও নেই, এটা কি রাজনৈতিক বিজয় নয়।

জাতীয় নির্বাচনে কোন প্রভাব পড়বে কিনা জানতে চাইলে তিনি বলেন, স্থানীয় সরকার নির্বাচনে প্রার্থীর একটা বিষয় আছে। আমরাও ভালো প্রার্থী দিয়েছিলাম ভোটাররা জাতীয় পার্টির প্রার্থীকে ভোট দিয়েছে। রংপুর সিটি নির্বাচনে আওয়ামী লীগের পরাজয়ের কারণ জানতে চাইলে কাদের বলেন, দেখুন এটা নিয়ে বিশ্লেষণ, এ নিয়ে আলাপ আলোচনা, এজন্য দলীয় ফোরাম আছে। দলীয় ফোরামে আলাপ আলোচনার আগে আমি এই ব্যাপারে কোন কথা বলতে পারি না।

এর আগে নোয়াখালী জেলা সমিতির অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন ওবায়দুল কাদের। নোয়াখালী সমিতির সভাপতি মো. সাহাব উদ্দিনের সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন জাসদ (জেএসডি) সভাপতি আ স ম আব্দুর রব, সাধারণ সম্পাদক মো. সামসুল হক, সহ সভাপতি মঞ্জুরুল হক মঞ্জু, আব্দুল হাই প্রমূখ।

jagonews24

Check Also

‘হাজী’ পরিবারের বিস্ময়কর উত্থান

পিতার দুই সংসারের দ্বিতীয় পক্ষের সন্তান তিনি। অভাব-অনটনে বেড়ে ওঠা। অর্থভাবে লেখাপড়া করতে পারেননি। কিশোর …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

Share
Pin