হঠাৎ ২০১৮ সাল নিয়ে শঙ্কিত কেন কাদের!

দুই সপ্তাহ পর শুরু হতে যাওয়া নতুন বছর নিয়ে শঙ্কিত ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের। তিনি মনে করেন, সাম্প্রদায়িক শক্তির হামলায় ২০১৮ সাল খারাপ যাবে।

সোমবার সন্ধ্যায় মিরপুর ১০ এর সেনপাড়া পর্বতায় ব্যাপ্টিস্ট মিশন ইন্টিগ্রেটেড স্কুলে বড়দিন উপলক্ষে এক অনুষ্ঠানে এই আশঙ্কার কথা বলেন আওয়ামী লীগ নেতা।

কাদের বলেন, ‘আগামী বছর দেশে সংকট তৈরির অপচেষ্টা হতে পারে। সাম্প্রদায়িক গোষ্ঠী হামলা চালাতে পারে। এ ব্যাপারে সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির সবাইকে সজাগ থাকতে হবে।’ ‘২০১৮ সাল খারাপ যাবে। উগ্রবাদী সাম্প্রদায়িক শক্তি মাঝে মাঝে বিচ্ছিন্ন ঘটনা ঘটায়।’

এই সাম্প্রদায়িক গোষ্ঠী কোনো বিশেষ দলের নয় মন্তব্য করে তাদের বিরুদ্ধে কঠোর অবস্থানের কথা জানান কাদের। বলেন, ‘এরা যে দলেরই হউক তাদের ব্যাপরে সরকার কঠোর অবস্থানে রয়েছে। তাদের শাস্তির আওতায় আনা হবে।’

চট্টগ্রামে আওয়ামী লীগ নেতা মহিউদ্দিন চৌধুরীর কুলখানির অনুষ্ঠানে পদদলিত হয়ে ব্যাপক প্রাণহানির ঘটনায় শোক জানান কাদের।

আওয়ামী লীগ নেতা বলেন, ‘একটি শোকের রেশ শেষ হতে না হতেই আরেকটি শোকের ছায়া বাংলাদেশকে ঢেকে ফেলেছে। একটি শোকাচ্ছন্ন পরিবেশ বিরাজ করছে সারাদেশে।’

যারা পদদলিত হয়ে মারা গেছেন, তাদের বেশিরভাগই হিন্দু ধর্মাবলম্বী। কাদের বলেন, ‘তারা সনাতন ধর্মালম্বী হয়েও তার কুলখানিতে এসেছিলেন। তার (মহিউদ্দিন চৌধুরী) প্রতি মানুষের ভালোবাসার প্রমাণ মিলেছে এর মাধ্যমেই।’

‘নেতা হবে তার (মহিউদ্দিন) মতো। যে নেতা ছিলেন মানুষ, মাটির কাছাকাছি একজন। তাকে ভালোবেসে তারা এসেছিলেন শ্রদ্ধা জানাতে।’

ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেসনে উপনির্বাচন নিয়েও কথা বলেন কাদের। বলেন, ‘আমরা ডিএনসিসি নির্বাচনে যোগ্য প্রার্থী দেব। নেত্রীর এবং দলের একটি জরিপ চলছে।’

কাদের বলেন, প্রধানমন্ত্রী চান রংপুর সিটি করপোরেশন নির্বাচন অবাধ ও সুষ্ঠু হোক। আর এই চাওয়া তিনি রংপুরের পুলিশ ও প্রশাসনকে জানিয়ে দিয়েছেন।

ঢাকাটাইমস

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.