rongpur_parthi

রংপুর সিটি নির্বাচনে বিএনপির অংশগ্রহণে অনিশ্চয়তা

রংপুর সিটি করপোরেশন নির্বাচনে বিএনপির প্রার্থী কাওসার জামান বাবলার অংশগ্রহণ অনেকটা অনিশ্চিত হয়ে পড়েছে। ৪০ কোটি টাকার ঋণ খেলাপি দেখিয়ে তার মনোনয়ন প্রত্যাহারের জন্য আপিল করেছে সোনালী ব্যাংক কর্তৃপক্ষ। বাবলা বলেছেন, তার নামে ঋণ রয়েছে, তবে এটা তার ব্যক্তিগত নয়, কোম্পানির।

আইন অনুযায়ী ঋণখেলাপিদের নির্বাচনে অংশ নেয়ার সুযোগ নেই। আবার কোম্পানির নামে খেলাপি ঋণ থাকলে প্রার্থিতা বাতিল হওয়ার একাধিক ঘটনা ঘটেছে বাংলাদেশে। মঙ্গলবার বিকালে বাবলার প্রার্থিতা বাতিলে আবেদন করা হয়েছে বলে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন বিভাগীয় কমিশনারের কার্যালয়।

আগামী ২১ ডিসেম্বর রংপুর সিটি করপোরেশন নির্বাচনের ভোট অনুষ্ঠিত হবে। আর প্রতীক বরাদ্দ ৪ ডিসেম্বর। এরমধ্যেই বিএনপির প্রার্থিতা নিয়ে অনিশ্চয়তা তৈরি হলো।

সিটি করপোরেশন নির্বাচনে ২১ নভেম্বর রাতে দলীয় প্রধান কাওসার জামান বাবলাকে দলীয় প্রার্থী ঘোষণা করে বিএনপি। এর আগে রংপুর নগর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক শহিদুল ইসলাম মিজু ও সাংগঠনিক সম্পাদকসহ পাঁচ জন মনোনয়ন প্রত্যাশী দলীয় প্রধানের কাছে প্রার্থিতা চেয়ে আবেদন করেছিলেন। ২১ নভেম্বর রাতে প্রার্থী চূড়ান্ত হলে ২২ নভেম্বর মনোনয়নপত্র জমা দেন কাওসার জামান বাবলা। আর ২৬ নভেম্বর তাকে বৈধ প্রার্থী হিসেবে ঘোষণা করেন রংপুর রিটার্নিং কর্মকর্তা সুভাষ চন্দ্র সরকার।

নির্বাচন কর্মকর্তার দেয়া বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে আপিল কর্তৃপক্ষের কাছে আবেদন করে সোনালী ব্যাংক কর্তৃপক্ষ। যাতে ৪০ কোটি টাকার ঋণ খেলাপি হিসেবে উল্লেখ করে মনোনয়ন বাতিল চেয়ে আবেদন করা হয়েছে। আর বিষয়টির উপর শুনানি হবে আগামী ৩০ নভেম্বর।

বিএনপির প্রার্থী কাওসার জামান বাবলার দাবি, ওই ঋণ তার একার নয়, কোম্পানির। আর ওই কোম্পানিতে তার ২০ শতাংশ শেয়ার রয়েছে। সুতরাং কোন প্রতিষ্ঠানের দায় ব্যক্তির উপর পড়ে না।

বাবলা বলেন, ‘আমি শুনেছি সোনালী ব্যাংক কর্তৃপক্ষ আবেদন করেছে। তারা আমার বাসায় চিঠি দিয়েছে। আমরা এ বিষয়ে আদালতে শরণাপন্ন হয়েছি। বৃহস্পতিবার শুনানির তারিখ রয়েছে।’

রংপুর বিভাগীয় কমিশনর ও আপিল কর্তৃপক্ষ কাজী হাসান আহমেদ ঢাকাটাইমসকে বলেন, এ বিষয়ে একটি আবেদন জমা হয়েছে। আমরা যাচাই বাছাই করছি। উভয় পক্ষকে বৃহস্পতিবার বিকেল সাড়ে তিনটায় অফিসে ডাকা হয়েছে। তাদের উপস্থিতিতেই শুনানি হবে। আইন যা বলবে তাই হবে।’

এদিকে কমিশন বৈধ ঘোষিত প্রার্থীর মনোনয়ন বাতিল চেয়ে করা আবেদন সরকারের ষড়যন্ত্র হিসেবে দেখছে স্থানীয় বিএনপি।

রংপুর নগর বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুস সালাম ঢাকাটাইমসকে বলেন, ‘নির্বাচন কমিশন সব আইন কানুন মেনে আমাদের প্রার্থীদেও বৈধ ঘোষণা করেছে। কিন্তু একদিন পর সরকারের ব্যাংক সোনালী ব্যাংক এর বিরুদ্ধে আপিল করেছে। আমরা মনে করি বিএনপিকে এই নির্বাচন থেকে দুরে রাখতে সরকার ব্যাংক দিয়ে ষড়যন্ত্র করছে।

রংপুর অর্থঋণ আদালতের আইনজীবী সালাউদ্দিন কাদেরী ঢাকাটাইমসকে বলেন, ‘বিষয়টি যেহেতু বিচারাধীন তাই আপিল কর্তৃপক্ষ এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত নিতে পারেন না।’

ঢাকাটাইমস

Check Also

২০২৩ সালে ক্ষমতায় যাওয়ার রোড ম্যাপ করছে বিএনপি?

‘আগামী দিনের বিএনপির নেতৃবৃন্দ’ এই শিরোনামে লন্ডনে বিএনপির পলাতক ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক জিয়া সারাদেশে নেতৃবৃন্দের …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

Share
Pin