যৌন সম্পর্কে লিভ টুগেদার: আধুনিকতা নাকি ভণ্ডামি

ফাহিম মুনাসির (ছদ্মনাম)। পড়াশোনা করছেন একটি বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ে। থাকেন রাজধানীর একটি অভিজাত এলাকায়। ব্যাচেলর বাসায়ই থাকার কথা ছিল অবিবাহিত ফাহিমের। কিন্তু তিনি থাকেন একটি ফ্যামিলি বাসায়। তবে বউ নিয়ে নয়। থাকেন বান্ধবিকে নিয়ে। দুই রুমের বাসা। রয়েছে অল্প স্বল্প আসবাবও।

কিন্তু বাসা অতোটা পরিপাটি বা গুছানো নয়। বান্ধবির সাথে স্বামী-স্ত্রীর মতো চলাফেরা। একসাথে থাকা খাওয়া। কিন্তু তবুও তারা স্বামী-স্ত্রী নয়। এ যেন স্বেচ্ছায় চড়ুইভাতি খেলা। এই সম্পর্কের কোন আইনগত ভিত্তি নেই। সেইসাথে নেই সামাজিক স্বীকৃতি। আর দায়িত্ব না নিতে পারার বিষয়টি তো রয়েছেই। যাই হোক, আধুনিক এই সম্পর্কের নাম লিভ টুগেদার। অবশ্য কেউ কেউ এটাকে আধুনিকতা মনে করলেও, কারও কাছে এই রকম সম্পর্ক হল ভণ্ডামি।

রাজধানী ঢাকায় এই ধরণের সম্পর্ক দিনে দিনে বাড়ছে। আগে এই ধরণের সম্পর্কের গুঞ্জন উচ্চবিত্ত বা শোবিজে থাকা মানুষদের মধ্যেই ছিল। কিন্তু সাম্প্রতিক সময়ে এই রকম সম্পর্ক মধ্যবিত্ত সমাজেও অহরহ দেখা যাচ্ছে। বিশেষ করে বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থীদের মধ্যে। বিশ্ববিদ্যালয় পড়ুয়া তরুণ-তরুণীদের অনেকেই এটাকে আধুনিকতার অংশ মনে করছে। আর রাজধানী ঢাকায় এসে পাতছে চড়ুইভাতির সংসার।

ঢাকায় ঠিক কি পরিমাণ তরুণ-তরুণী এমন লিভ টুগেদার করছে- তার কোন সঠিক পরিসংখ্যান পাওয়া যায় না। তবে এই সংখ্যাটা দিনকে দিন বাড়ছে। তরুণ-তরুণীদের লিভ টুগেদার ক্রমেই জনপ্রিয় হয়ে উঠছে। তবে এই ধরণের সম্পর্ক বেশী দিন টিকছে না বলে জানিয়েছেন একাধিক তরুণী। বয়স বা বন্ধুদের পাল্লায় করে এরাও একটা সময় লিভ টুগেদার করেছেন। কিন্তু এখন আর এই ধরণের সম্পর্কের কথা মনে করতে চান না।

একজন তরুণী জানান, ‘শুরুতে লিভ টুগেদার নিয়ে আমার ভেতরে একটা রোমাঞ্চ কাজ করেছিল। তাই ৬ মাসের মতো এই রকম সম্পর্কে ছিলামও। কিন্তু এখন এটাকে কোনভাবে গ্রহণযোগ্য কোন সম্পর্ক বলে মনে হয় না। এখানে কোন দায়বদ্ধতা বা দায়িত্বশীলতা থাকে না’।   

লিভ টুগেদার সম্পর্কে নেতিবাচক প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেন অন্য আরেকজন তরুণী। তিনি একটা সময় এই ধরণের সম্পর্কে ছিলেন। কিন্তু এখন আর এসব বিষয় মনে করতে চান না। বিয়ে করে ভালোই জীবন কাটছে তার। তার মতে, ‘এখানে যৌনতা আর ছাড়া আর কিছুই থাকে না। একটা সম্পর্ক শুধু যৌনতা কেন্দ্রিক হতে পারে না। এর বাইরে কেয়ারিং, শেয়ারিং বলতে অনেক কিছুই থাকে। লিভ টুগেদার স্রেফ ভণ্ডামি’।

বাংলা ইনসাইডার

                  

Check Also

নারী থেকে পুরুষ হয়ে প্রেমিকাকে বিয়ে করলেন ‘সুলতানা’

ভালবাসা মানুষটিকে নিজের করতে নারী থেকে পুরুষ হলেন ‘শাহরিয়ার সুলতানা’। পুরুষ হয়ে ভালোবাসার মানুষটিকে বিয়ে …

Leave a Reply

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

Share
Pin