ভারত ভেঙে ফেলবে পাকিস্তান!

ভারতের কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রাজনাথ সিং অভিযোগ করেছেন, সন্ত্রাসীদের সাথে নিয়ে পাকিস্তান ভারত ভাঙার চেষ্টা করছে। তবে ভারতীয় বাহিনীও তার সমুচিত জবাব দিচ্ছে বলে মনে করেন তিনি। সন্ত্রাসীদের সাথে নিয়ে পাকিস্তান ভারত ভাঙার চেষ্টা করছে বলে অভিযোগ করেছেন দেশটির কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রাজনাথ সিং। তবে ভারতীয় বাহিনীও তার সমুচিত জবাব দিচ্ছে বলে মনে করেন তিনি।

শনিবার ভারতের কেন্দ্রশাসিত রাজ্য দামান ও দিউর দিউ এলাকায় বক্তব্য দেয়ার সময় রাজনাথ সিং বলেন, ‘একটি বাদে আমাদের সব প্রতিবেশীই ভালো।’ তিনি আরো বলেন, ‘আমরা আমাদের সব প্রতিবেশীর সাথে সুসম্পর্ক ধরে রাখতে চাই। আমাদের নীতি বলে, সারা পৃথিবী একটি পরিবার। আমরা প্রতিবেশীদের বন্ধুত্বের মর্যাদা দিতে চাই।’

পাকিস্তানের দিকে ইঙ্গিত করে ভারতীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ‘একটি প্রতিবেশী ছাড়া আমাদের সব প্রতিবেশীই ভালো। কোনটি আপনারা জানেন।’ রাজনাথের ভাষায়, ‘এই প্রতিবেশী যদি আজ আমাদের সাথে না আসে, তবে ভবিষ্যতে আসতে হবে। তারা সন্ত্রাসীদের ভারতে ঢুকতে সহায়তা দিচ্ছে। ভারতকে ভাঙতে চাইছে।’ তবে নিজেদের ভূখণ্ড রক্ষায় আপ্রাণ চেষ্টা করার জন্য সশস্ত্র বাহিনীকে ধন্যবাদ দেন তিনি।

আরো বলেন, ‘আমরা ২০১৪ সালে আমাদের সীমান্তরক্ষীদের প্রতিবেশীদের সাথে ভালো সম্পর্ক রাখার কথা বলেছি- সেটা পাকিস্তান হলেও। আমি তাদের প্রথমেই কোনো গুলি না করতে বলেছি।’

কাবুলে ভোটার নিবন্ধন কেন্দ্রে আত্মঘাতী হামলা : নিহত ৫৪

আলজাজিরা রয়টার্স ও বিবিসি

আফগানিস্তানের রাজধানী কাবুলে গতকাল রোববার একটি ভোটার নিবন্ধন কেন্দ্রের বাইরে এক আত্মঘাতী বোমা হামলায় অন্তত ৫৪ জন নিহত হয়েছেন। পরিচয়পত্রের জন্য অপেক্ষারতদের মধ্যে বিস্ফোরণটি ঘটানো হয় বলে জানিয়েছেন কর্মকর্তারা। এ হামলায় আরো৫৪ জন আহত হয়েছেন।

তুলনামূলকভাবে কয়েক সপ্তাহ ধরে শান্ত থাকার পর কাবুলে এ হামলাটি চালানো হলো। সন্ত্রাসী সংগঠন ইসলামিক স্টেট (আইএস) হামলার দায় স্বীকার করেছে। কাবুলের পশ্চিমাংশের দাশত ই বার্চি এলাকায় বিস্ফোরণটি ঘটানো হয়। এই এলাকাটিতে সংখ্যালঘু শিয়া হাজারা সম্প্রদায়ের লোকজন বসবাস করেন। এর আগেও আইএস বেশ কয়েকবার এই এলাকাটিতে মারাত্মক বোমা হামলা চালিয়েছিল। টুইটারে দেয়া এক বিবৃতিতে তালেবানের প্রধান মুখপাত্র এই হামলার সাথে তারা জড়িত নয় বলে জানিয়েছে।

আফগানিস্তানের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র নাজিব দানেশ জানিয়েছেন, কেন্দ্রটিতে পরিচয়পত্র দেয়ার সময় হেঁটে সেখানে আসা এক ব্যক্তি বোমাটির বিস্ফোরণ ঘটায়। দেশটির জনস্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের এক মুখপাত্র প্রাথমিকভাবে জানিয়েছিলেন, অন্তত ৩১ জন নিহত হয়েছেনও ৫৪ জন আহত হয়েছেন। তবে পরে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৫৪ হয়। বিস্ফোরণে ঘটনাস্থলের আশপাশে রাখা কয়েকটি গাড়ি ধ্বংস হয় এবং নিকটবর্তী ভবনগুলোর জানালা ভেঙে পড়ে। প্রত্যক্ষদর্শী বশির আহমদ জানিয়েছেন, ঘটনাস্থলে শিশু ও নারীরাও ছিল। সবাই তাদের পরিচয়পত্র সংগ্রহ করতে সেখানে জমায়েত হয়েছিল বলে জানিয়েছেন তিনি।

এই বছরের অক্টোবরে আফগানিস্তানে বহুল প্রত্যাশিত পার্লামেন্ট ও জেলা পরিষদ নির্বাচন অনুষ্ঠানের কথা রয়েছে। নির্বাচন সামনে রেখে ভোটার নিবন্ধন কার্যক্রম চলছে। পুরো আফগানিস্তানজুড়ে ভোটার রেজিস্ট্রেশন সেন্টার স্থাপন করা হয়েছে। নির্বাচনের প্রস্তুতি চলাকালে হামলা হতে পারে এমন আশঙ্কা আগে থেকেই করা হয়েছিল। তালেবানরা দেশটিতে অনেক বেশি সক্রিয়। আফগান সরকার তাদের শান্তি আলোচনায় বসার আহ্বান জানালেও এখনো তা শুরু হয়নি। নির্বাচন ঘিরে আরো হামলার আশঙ্কা করছে আফগান সরকার।

Check Also

মুখ ফিরিয়ে নিলেন আত্মীয়স্বজন, হিন্দু বৃদ্ধের সৎকার করলেন মুসলিম যুবকরা

বার্ধক্যজনিত অসুস্থতার কারণে মৃত্যু হয় ভারতের বুলন্দশহরের বাসিন্দা রবিশংকরের। অথচ প্রতিবেশীরা মনে করেন করোনা সংক্রমণের …

Leave a Reply

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

Share
Pin