Tuesday , July 23 2019

মান্নার সভায় বি চৌধুরী-কামাল-রব-ফখরুলের এক সুর

সরকার পতনে একমঞ্চে ঐকমত্য প্রকাশ করেছেন বিকল্পধারা বাংলাদেশের প্রেসিডেন্ট সাবেক রাষ্ট্রপতি ডা. একিউএম বদরুদ্দোজা (বি) চৌধুরী, গণফোরাম সভাপতি ও সংবিধান প্রণেতা ড. কামাল হোসেন, জেএসডি সভাপতি আ স ম আবদুর রব, বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর ও নাগরিক ঐক্যের আহ্বায়ক মাহামুদুর রহমান মান্না।

জাতীয় প্রেসক্লাব মিলনায়নে বুধবার বিকালে নাগরিক ঐক্য আয়োজিত ‘ইভিএম বর্জন, জাতীয় নির্বাচন ও রাজনৈতিক জোট’ শীর্ষক আলোচনা সভায় এই ঐকমত্য প্রকাশ করে বক্তব্য দেন তারা।

সভায় বি চৌধুরী বলেন, গণতন্ত্রহীনতা আর সহ্য করা যায় না। আমরা উন্নয়ন চাই সঙ্গে গণতন্ত্রও থাকতে হবে। নিরপেক্ষ নির্বাচন ছাড়া গণতন্ত্র হয় না।

ড. কামাল হোসেন বলেন, আমরা বহুদলীয় গণতন্ত্রে বিশ্বাস করি। কেবল অবাধ, নিরপেক্ষ নির্বাচন করতের পারলেই জনগন যে, সকল ক্ষমতার মালিক এটা নিশ্চিত করা যায়।

তিনি বলেন, জনগণকে অন্যায়-অবিচার থেকে মুক্ত করতে হবে। দেশের স্বার্থে, জনগণের স্বার্থে সর্বোপরি জাতির স্বার্থে আমাদের ঐক্যবদ্ধ হতে হবে।

মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেন, দেশে যে অন্যায়-অবিচার হচ্ছে তা নজিরবিহীন। স্বাধীন বাংলাদেশ ডুবে যাচ্ছে, নিমজ্জিত হয়ে যাচ্ছে। দেশ ও জাতির প্রয়োজনে জাতিকে রক্ষা করতে আসুন আমরা সবাই ঐক্যবদ্ধ হই।

আ স ম আবদুর রব বলেন, ঘরের ভেতরে মিটিং করে লাভ হবে না। সরকারকে বিদায় করতে হবে। আমরা নির্বাচন ঠেকাতে চাই না। সুষ্ঠু, অবাধ, নিরপেক্ষ নির্বাচন চাই। সেই নির্বাচনে অংশগ্রহণও করতে চাই।

মাহামুদুর রহমান মান্না বলেন, এই জুলুমবাজ, চোর সরকার শেয়ারবাজার, ব্যাংক জনগণের জায়গা-জমি সবকিছু খেয়েছে। এমনভাবে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করতে হবে যাতে করে সরকার মাথা নত করতে বাধ্য হয়। আমরা স্বৈরাচার, অন্যায়ের কাছে মাথানত করতে পারি না। আর তাই ঐক্যবদ্ধ হয়েছি।

এছাড়াও অনুষ্ঠানে বক্তব্য দেন কল্যাণ পার্টির চেয়ারম্যান সৈয়দ মুহাম্মদ ইবরাহিম, ঢাকা বিশ্ববিদ্যায়ের আইন বিভাগের অধ্যাপক আসিফ নজরুল, জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যায়ের রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের সাবেক চেয়ারম্যান অধ্যাপক দিলারা চৌধুরী প্রমুখ।

উৎসঃ   পরিবর্তন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.